বৈশাখের লোভনীয় ছয় পদ

বৈশাখের লোভনীয় ছয় পদ

২৪ নিউজভিশন.কম>
বাংলা বছরের প্রথম দিনটিতে খাওয়ার আয়োজনে থাকে বাঙালিয়ানার ছোঁয়া। এটাই রীতি। চাইলে চেনা খাবারগুলোই একটু ভিন্নভাবে উপস্থাপন করা যায়। সে রকম কিছু খাবারের রেসিপি দেওয়া হলো।

টাকি মাছের ভর্তা
উপকরণ: টাকি মাছ ৪টা, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, রসুন কুচি ১ চা-চামচ, মরিচ গুঁড়া আধা চা-চামচ, হলুদ গুঁড়া আধা চা-চামচ, লবণ স্বাদমতো, জিরা গুঁড়া আধা চা-চামচ, তেল ১ চা-চামচ, শুকনা মরিচ ২টি ও ধনেপাতা কুচি ১ চা-চামচ।
প্রণালি: টাকি মাছ পরিষ্কার করে ধুয়ে হলুদ, লবণ মেখে পানিতে সেদ্ধ করে নিন। মাছের কাঁটা ফেলে তেলে শুকনা মরিচ ভেজে তুলে নিন। বাদামি করে ভেজে বাকি সব মসলা দিয়ে কষিয়ে পানি দিয়ে নেড়ে মাছ ঢেলে নাড়ুন। শুকনা মরিচ দিন, ধনেপাতা কুচি দিয়ে নামিয়ে নিতে হবে।

ফলি মাছের কোপ্তা
উপকরণ: মাছ ২টা, আদা বাটা ১ চামচ, রসুন বাটা আধা চা-চামচ, মরিচ গুঁড়া ১ চা-চামচ, হলুদ গুঁড়া আধা চা-চামচ, লবণ পরিমাণমতো, জিরা গুঁড়া ১ চা-চামচ, ধনে গুঁড়া ১ চা-চামচ, কাঁচামরিচ বাটা ১ চা-চামচ, গরমমসলা গুঁড়া ১ চা-চামচ, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, টমেটো কুচি ১ টেবিল চামচ।
প্রণালি: ফলি মাছ পাটায় আলতোভাবে থেঁতলে ভেতর থেকে মাছ বের করে নিন। বাটা মাছের সঙ্গে কাঁচামরিচ বাটা অর্ধেকটা, আদা বাটা, জিরা, ধনে, গরমমসলা গুঁড়া ও পরিমাণমতো লবণ মেখে মাছের চামড়ার ভেতর ঢুকিয়ে মাছ ভেজে রাখুন। অল্প তেলে বাকি সব মসলা কষিয়ে টমেটো দিন। মাছের কোপ্তা টুকরো করে দিয়ে দিন। কয়েক মিনিট নেড়ে ধনে পাতা কুচি দিয়ে নামিয়ে নিন।

কাঁচা কাঁঠালের টিকিয়া
উপকরণ: কাঁচা কাঁঠাল ১ কাপ, বুটের ডাল আধা কাপ, আদা বাটা ১ চা-চামচ, পেঁয়াজ ভাজা ১ চা-চামচ, জিরা গুঁড়া ১ চা-চামচ, ধনে গুঁড়া আধা চা-চামচ, গরমমসলা গুঁড়া আধা চা-চামচ, লবণ স্বাদমতো, হলুদ গুঁড়া আধা চা-চামচ, কাঁচা মরিচ কুচি ১ চা-চামচ, ডিম ১টি, তিল ১ চা-চামচ।
প্রণালি: কাঁচা কাঁঠালের খোসা কেটে ছোট ছোট টুকরা করে নিতে হবে। সামান্য হলুদ গুঁড়া দিয়ে সেদ্ধ করে নিন। পানি ঝরিয়ে বাটুন। বুটের ডাল সেদ্ধ করে বেটে নিন। সব উপকরণ একসঙ্গে মেখে ডিমে গড়িয়ে ওপরে তিল দিয়ে ভেজে নিন।

মাছ মরিচের ভর্তা
উপকরণ: কাঁচা মরিচ ১০টা, সেদ্ধ আলু ১ টুকরা, যেকোনো মাছ ১ টুকরা, লবণ পরিমাণমতো, হলুদ গুঁড়া সামান্য, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ।
প্রণালি: কাঁচামরিচ, পেঁয়াজ অল্প পানিতে সেদ্ধ করে পানি শুকিয়ে রাখুন। মাছে লবণ ও হলুদ মেখে ভেজে নিতে হবে। মাছের কাঁটা বেছে নিন। ১ টুকরা সেদ্ধ আলু, কাঁটা ছাড়ানো মাছ ও সেদ্ধ মরিচ একসঙ্গে পাটায় বেটে নিন। পরিমাণমতো লবণ মেখে ভর্তা তৈরি করে নিন।

লাউপাতার ভর্তা
উপকরণ: লাউ পাতা ১০টা, কাঁচামরিচ ২টা, রসুন কুচি ১ চা-চামচ, পেঁয়াজ কুচি ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো।
প্রণালি: রসুন কুচি করে তেলে ভাজুন। লাউপাতা, কাঁচামরিচ, পেঁয়াজ কুচি তাওয়াতে টেলে নিন। হাত দিয়ে পাতা ও মরিচ কচলে নিন অথবা ছুরি দিয়ে কুচি কুচি করে নিন। লবণ ও ভাজা রসুনের সঙ্গে মেখে ভর্তা তৈরি করুন।

আম দিয়ে কাচকি মাছ
উপকরণ: কাচকি মাছ ২৫০ গ্রাম, কাঁচা আম ৬ টুকরা, পেঁয়াজ বাটা ১ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ কুচি ১ চা-চামচ, রসুন বাটা আধা চা-চামচ, হলুদ গুঁড়া আধা চা-চামচ, মরিচ গুঁড়া আধা চা-চামচ, লবণ স্বাদমতো, তেল ১ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ ফালি ৪টা। ধনেপাতা কুচি ১ টেবিল চামচ।
প্রণালি: কাচকি মাছ পরিষ্কার করে ধুয়ে ধনেপাতা ছাড়া অন্য সব উপকরণ দিয়ে মেখে নিন। অল্প পানি দিয়ে বসান। মাছ সেদ্ধ হয়ে তেল ওপরে উঠে এলে ধনেপাতা দিয়ে নামিয়ে নিন।